আলোকের এই ঝর্নাধারায় ধুইয়ে দাও -আপনাকে এই লুকিয়ে-রাখা ধুলার ঢাকা ধুইয়ে দাও-যে জন আমার মাঝে জড়িয়ে আছে ঘুমের জালে..আজ এই সকালে ধীরে ধীরে তার কপালে..এই অরুণ আলোর সোনার-কাঠি ছুঁইয়ে দাও..আমার পরান-বীণায় ঘুমিয়ে আছে অমৃতগান-তার নাইকো বাণী নাইকো ছন্দ নাইকো তান..তারে আনন্দের এই জাগরণী ছুঁইয়ে দাও 'আমেরিকার দিবস-রজনী' ~ alokrekha আলোক রেখা
1) অতি দ্রুত বুঝতে চেষ্টা করো না, কারণ তাতে অনেক ভুল থেকে যায় -এডওয়ার্ড হল । 2) অবসর জীবন এবং অলসতাময় জীবন দুটো পৃথক জিনিস – বেনজামিন ফ্রাঙ্কলিন । 3) অভাব অভিযোগ এমন একটি সমস্যা যা অন্যের কাছে না বলাই ভালো – পিথাগোরাস । 4) আমাকে একটি শিক্ষিত মা দাও , আমি তোমাকে শিক্ষিত জাতি দেব- নেপোলিয়ন বোনাপার্ট । 5) আমরা জীবন থেকে শিক্ষা গ্রহন করি না বলে আমাদের শিক্ষা পরিপূর্ণ হয় না – শিলার । 6) উপার্জনের চেয়ে বিতরণের মাঝেই বেশী সুখ নিহিত – ষ্টিনা। 7) একজন ঘুমন্ত ব্যাক্তি আরেকজন ঘুমন্ত ব্যাক্তি কে জাগ্রত করতে পারে না- শেখ সাদী । 8) একজন দরিদ্র লোক যত বেশী নিশ্চিত , একজন রাজা তত বেশী উদ্বিগ্ন – জন মেরিটন। 9) একজন মহান ব্যাক্তির মতত্ব বোঝা যায় ছোট ব্যাক্তিদের সাথে তার ব্যবহার দেখে – কার্লাইন । 10) একজন মহিলা সুন্দর হওয়ার চেয়ে চরিত্রবান হওয়া বেশী প্রয়োজন – লং ফেলো। 11) কাজকে ভালবাসলে কাজের মধ্যে আনন্দ পাওয়া যায় – আলফ্রেড মার্শা
  • Pages

    লেখনীর সূত্রপাত শুরু এখান থেকে

    'আমেরিকার দিবস-রজনী'
















     'আমেরিকার দিবস-রজনী'

    নীপা  লায়লা 

    আজ এখানে ভোর হয়েছে বেশ অন্ধকার নিয়ে।আকাশ মেঘলা মেঘলা তাই শীতটাও বেশ বেশী আজ।এমনিতে আসার পর থেকেই শীত শীত ভাব ছিল আর আজ ভোর থেকেই রীতিমতো শীত পড়ে গেছে।
    এদের টেম্পারেচার মাপার ব্যবস্থা আমি বুঝিনা শুধু বুঝি আমাদের দেশের শীতকালের ১৫/১৬ ডিগ্রী সেলসিয়াস হবে মনে হচ্ছে।জামাই হসপিটালে চলে গেছে সকালেই কিন্তু মেয়ে আজ ঘরে বসেই কাজ করবে।কি অদ্ভুত সুন্দর সিস্টেম এই দেশের!কারুর প্রয়োজনে সে ইচ্ছে হলে ঘরে বসেই কাজ করতে পারে,একে "ওয়ার্ক ফ্রম হোম" বলে এরা।
    আমরা নাস্তা খেতে খেতেই ল্যাপটপ নিয়ে কাজ করতে থাকা মেয়েকে জিজ্ঞেস করেছি, আজ বৃষ্টি হবে নাকি রে মা?মেয়ে বললো,হতে পারে মা, ওয়েদার ফোরকাস্ট করেছে তো বৃষ্টির কথা বলে।বললাম,আমাদের দেশের মতন ফোরকাস্ট নাকি যে, যা বলে তার উল্টা হয়?মেয়ে বললো,না মা এখানে অলমোস্ট পার্ফেক্ট ফোরকাস্ট করে আর আজ বলেছে ৭৪%সম্ভবনা বৃষ্টি হবার। মেয়ের কথা সত্যি প্রমাণ করেই বুঝি গুরুগুরু করে আকাশ ডাকা শুরু করেছে। মাস্টার সাহেবকে বললাম,দেখছো কেমন ঠিক ঠিক ওয়েদার ফোরকাস্ট এদের!উনি শুধু বললেন হু,তারপর বারান্দায় চলে গেলেন।এখন ডেকে বলছেন,দেখে যাও ঝিরঝির করে বৃষ্টি পড়া শুরু করেছে!
    বেয়ান নিজের এবং মাস্টার সাহেবের জন্যে চা বানাচ্ছেন,মেয়ে আমার একেবারে আমেরিকান মেমদের মতন করে কার সাথে যেন ফোনে কথা বলতে বলতে ল্যাপটপে আঙুল চালাচ্ছে আর আমি কম্বল মুড়ি দিয়ে সোফায় গা এলিয়ে দিয়ে আরামে ডুব দিয়েছি।খোলা দরজা দিয়ে বারান্দা থেকে হিম হিম ভাব সারা ঘরে ছড়িয়ে পড়ছে!
    আহ্ বৃষ্টি!
    আমেরিকান বৃষ্টি!
    শীত শীত কাঁপুনি নিয়ে এসেছে আমেরিকান বৃষ্টি!
    বিশাল স্ক্রিনে ইউটিউবে চলছে,
    আমারও পরাণও যাহা চায় তুমি তাই তুমি তাই- গো.....
    লাইফ ইজ বিউটিফুল হেয়ার....
    প্ল্যানো, টেক্সাস
    ১৭ই এপ্রিল '১৭
















     http://www.alokrekha.com

    2 comments:

    1. আমান রহমানJune 10, 2017 at 2:37 PM

      আমার ভ্রমন লেখা খুব ভাল লাগে। নীপা লায়লা'আমেরিকার দিবস-রজনী'অন্যন্য। আলোক রেখার এই এক গুন এখানে সব ধরনের লেখা বিদ্যমান। সত্যই একটা লাইব্রেরারি।অনেক শুভকামনা ওঃ শুভেচ্ছা লেখককে।

      ReplyDelete
    2. খুব মিষ্টি মধুর চিত্রকল্প
      বেশ অকপট ও পরিছন্ন
      ছোট ছোট বাক্য

      ReplyDelete

    অনেক অনেক ধন্যবাদ