আলোকের এই ঝর্নাধারায় ধুইয়ে দাও -আপনাকে এই লুকিয়ে-রাখা ধুলার ঢাকা ধুইয়ে দাও-যে জন আমার মাঝে জড়িয়ে আছে ঘুমের জালে..আজ এই সকালে ধীরে ধীরে তার কপালে..এই অরুণ আলোর সোনার-কাঠি ছুঁইয়ে দাও..আমার পরান-বীণায় ঘুমিয়ে আছে অমৃতগান-তার নাইকো বাণী নাইকো ছন্দ নাইকো তান..তারে আনন্দের এই জাগরণী ছুঁইয়ে দাও ক্যাকটাস ~ alokrekha আলোক রেখা
1) অতি দ্রুত বুঝতে চেষ্টা করো না, কারণ তাতে অনেক ভুল থেকে যায় -এডওয়ার্ড হল । 2) অবসর জীবন এবং অলসতাময় জীবন দুটো পৃথক জিনিস – বেনজামিন ফ্রাঙ্কলিন । 3) অভাব অভিযোগ এমন একটি সমস্যা যা অন্যের কাছে না বলাই ভালো – পিথাগোরাস । 4) আমাকে একটি শিক্ষিত মা দাও , আমি তোমাকে শিক্ষিত জাতি দেব- নেপোলিয়ন বোনাপার্ট । 5) আমরা জীবন থেকে শিক্ষা গ্রহন করি না বলে আমাদের শিক্ষা পরিপূর্ণ হয় না – শিলার । 6) উপার্জনের চেয়ে বিতরণের মাঝেই বেশী সুখ নিহিত – ষ্টিনা। 7) একজন ঘুমন্ত ব্যাক্তি আরেকজন ঘুমন্ত ব্যাক্তি কে জাগ্রত করতে পারে না- শেখ সাদী । 8) একজন দরিদ্র লোক যত বেশী নিশ্চিত , একজন রাজা তত বেশী উদ্বিগ্ন – জন মেরিটন। 9) একজন মহান ব্যাক্তির মতত্ব বোঝা যায় ছোট ব্যাক্তিদের সাথে তার ব্যবহার দেখে – কার্লাইন । 10) একজন মহিলা সুন্দর হওয়ার চেয়ে চরিত্রবান হওয়া বেশী প্রয়োজন – লং ফেলো। 11) কাজকে ভালবাসলে কাজের মধ্যে আনন্দ পাওয়া যায় – আলফ্রেড মার্শা
  • Pages

    লেখনীর সূত্রপাত শুরু এখান থেকে

    ক্যাকটাস














    ক্যাকটাসইন্দ্রাণী ভট্টাচার্য


     দুবেনী ঝোলানো,এক্কা দোক্কা খেলতে খেলতে
    বালিকা থেকে কিশোরী হওয়া মেয়েটি;
    সোনালী স্বপ্ন মাখা চোখে,
    প্রজাপতির পেছনে দৌড়নো মন নিয়ে
    তাকিয়ে ছিল তার, প্রাণের চেয়েও প্রিয়,
    প্রিয়তম পুরুষটির দিকে.
    তরতরে সবুজ লতাটির মত বেড়ে উঠেছিল,
    আদর- ভালোবাসার রোদ জল পেয়ে.
    জানতে পারেনি সে, কখন যেন তার
    মুখের হাসি বদলে গেল, চোখের জলে.
    প্রজাপতির ডানা দুটো কে যেন কখন বেঁধে দিলো,
    বুঝতেও পারেনি.
    বাড়ানো, ভালোবাসার বৃষ্টি চাওয়া হাতে
    বারে বারে এসে পড়েছিলো, অবহেলার তপ্ত বালি;
    যা বাঁচিয়ে রাখতে পারে কেবলই একটি ক্যাকটাস কে !
    http://www.alokrekha.com

    3 comments:

    1. হেলাল মেহরানFebruary 28, 2018 at 5:01 PM

      কয়েকটি লাইনে কবি সন্দর করে জীবনের অমোঘ সত্য বুঝিয়ে দিয়েছেন ।অল্প কথায় দারুন কবিতা।অনেক ভাল লাগলো।

      ReplyDelete
    2. তপন সেনFebruary 28, 2018 at 5:16 PM

      ক্যাকটাস —কবিতায় ইন্দ্রাণী ভট্টাচার্য অনুরঁজন ও মুল বক্তব্য অপূর্ব অসাধারণ, লক্ষণীয়। চমত্কার, সুন্দর, প্রশংসনীয়, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন, বেশ মনোরম চমত্কার, সুন্দর, প্রশংসনীয়।। ভাষা ও শব্দ প্রশংসাযোগ্য,। অনেক শুভেচ্ছা জানাই কবিতা ও ধন্যবাদ আলোকরেখা ।”খুব ভাল থাকবেন।

      ReplyDelete
    3. ক্যাকটাস —কবিতায় ইন্দ্রাণী ভট্টাচার্য " ভালোবাসার বৃষ্টি চাওয়া হাতে
      বারে বারে এসে পড়েছিলো, অবহেলার তপ্ত বালি;" কথাগুল পুরো কবিতা বর্ণনা করেছেন।ভাষা ও শব্দ শৈলী প্রশংসাযোগইল।চমত্কার, সুন্দর, প্রশংসনীয়, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন, বেশ মনোরম জা প্রশংসনীয়।। অনেক শুভেচ্ছা জানাই কবি

      ReplyDelete

    অনেক অনেক ধন্যবাদ